• সোমবার   ১২ এপ্রিল ২০২১ ||

  • চৈত্র ২৯ ১৪২৭

  • || ২৯ শা'বান ১৪৪২

সর্বশেষ:
আপদকালীন স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতকরণে ৪৮৩ উপজেলায় ৩ লাখ টাকা করে অর্থ বরাদ্দ দিয়েছে সরকার জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় চরাঞ্চলের স্কুলের সাথে ফ্রান্সের মতবিনিময় চলতি সপ্তাহেই ২০০ শয্যার আইসিইউ হাসপাতাল প্রস্তুত হবে লকডাউনে রফতানিমুখী শিল্প কারখানা খোলা রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিতকরণে রংপুরে মাঠে নেমেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত

করোনা রোগীদের জন্য রান্না করা আশ্রয়ের ব্যবস্থা করল পুলিশ         

– কুড়িগ্রাম বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২০ জুন ২০২০  

তিনি নিজেও জানতেন না আক্রান্ত ব্যক্তিদের জন্য তিনি রান্নাবান্না করে দেন।স্যাম্পল নেয়া হয়েছিল। যখন জানা গেল তাদের দুজন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত তখন বাঁধ সাধল মেসের বাকী লোকজন।বন্ধ করে দেয়া হল মহিলার ঠিকে ঝিয়ের কাজ।তাকে মেসে ঢুকেতেই দেয়া হল না।

উপরন্ত এ ঘটনায় তিনি নিজে যে বাসায় ভাড়া থাকতেন সেখানেও বাঁধার সম্মুক্ষিণ হলেন।ত্রিশ কিলোমিটার দূরে সুদূর চিলমারী উপজেলায় নদী ভাঙনের শিকার গৃহহীন ও স্বামী পরিত্যক্তা এই মহিলাটি পেটের তাগিতে একটি বাড়িতে স্বল্পমূল্যে ভাড়া থেকে সংসার নির্বাহ করতেন। ঘটনার সময় সন্ধ্যা। কাজও করতে পারছেন না, বাড়িতেও উঠতে পারছেন না।রাস্তায় কতক্ষণ অনিরাপদে থাকবেন। শেষে সাহস সঞ্চয় করে গেলেন কুড়িগ্রাম সদর থানায়। তার অসহায় অবস্থার কথা শুনে তৎপর হলেন সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মাহফুজার রহমান। তার প্রচেষ্টায় রাতেই কুড়িগ্রাম-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব পনির উদ্দিন আহমেদের বাসায় থাকার ব্যবস্থা করা হল। অসহায় অবস্থা থেকে মুক্তি পেলেন মহিলাটি।কৃতজ্ঞতা জানালেন পুলিশ কর্মকর্তাকে।


জানা যায়, স্বামী পরিত্যক্তা চল্লিশোর্ধ শামীমা আক্তার শিউলি কুড়িগ্রাম ভোকেশনাল মোড়ের অপূর্ব ছাত্রাবাসে রান্নার কাজ করেন। বৃহস্পতিবার ওই মেসের দুজন করোনা সনাক্ত হয়। শুক্রবার তা জানাজানি হলে বিকেলে একই এলাকার ভাড়া বাসায় ঢুকতে দিচ্ছিলনা বাসার মালিক ও স্থানীয়রা। রাস্তায় দাঁড়িয়ে সন্ধ্যা পর্যন্ত স্থানীয় ব্যক্তিবর্গসহ কাউন্সিলরের স্মরণাপন্ন হয়েও সহযোগিতা পাননি। অসহায় শিউলির বিশ্বাস ছিল পুলিশ তার পাশে দাঁড়াবে। সে বিশ্বাস নিয়ে এগিয়ে যান কুড়িগ্রাম সদর থানায়। সব শুনে ওসি মাহফুজার রহমান উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষসহ বিভিন্ন জায়গায় কথা বলে কুড়িগ্রাম-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব পনির উদ্দিনের বাসায় থাকার ব্যবস্থা করেন। তিনি নিজে গাড়ীতে করে পৌঁছে দেন অসহায় সেই মহিলাকে।


কুড়িগ্রাম সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মাহফুজার রহমান জানান, অসহায় শিউলির বিষয়টি নিয়ে পুলিশ সুপার মহোদয়কে অবহিত করা হয়। তার নির্দেশে মহিলার নিরাপত্তা বিবেচনায় বিভিন্ন জায়গায় কথা বলে মাননীয় সংসদ সদস্য মহোদয়ের সম্মতিক্রমে তার বাসায় থাকার জন্য রাখা হয়। শনিবার (২০জুন) মহিলার করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। 

– কুড়িগ্রাম বার্তা নিউজ ডেস্ক –