ব্রেকিং:
দিনাজপুরে গত ২৪ ঘণ্টায় ২৩ জন ব্যক্তি করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৩ হাজার ৯৪৪ জনে। মঙ্গলবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ। গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে বড় ভাই আদম আলীর ধারালো কাচির আঘাতে ছোট ভাই শাপলা মিয়া (৫০) নিহত
  • বুধবার   ২৫ নভেম্বর ২০২০ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১০ ১৪২৭

  • || ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২

সর্বশেষ:
স্বাধীনতার পর সবচেয়ে বড় নির্মাণ অবকাঠামো হলো পদ্মাসেতু পীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বেড়েছে সেবার মান দিনাজপুরে আশার আলো জাগিয়েছে ‘ব্রি ধান ৮৭’ কুড়িগ্রামে বিনামূল্যে সোলার হোম সিস্টেম বিতরণ চার এমওইউ স্বাক্ষর হতে পারে হাসিনা-মোদি ভার্চুয়াল বৈঠকে ৪৩তম বিসিএসে নিয়োগ পাবেন ১৮১৪ জন

দীপাবলি উপলক্ষে গঙ্গাচড়ায় চলছে উৎসবের আয়োজন 

– কুড়িগ্রাম বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৩ নভেম্বর ২০২০  

আগামীকাল শনিবার দীপাবলি। আলোর উৎসব। হিন্দু সম্প্রদায়ের ঘরে ঘরে চলছে উৎসবের আয়োজন। আর এই দীপাবলিকে নিয়ে রংপুরের গঙ্গাচড়ায় পাল পাড়ায় চলছে কর্মব্যস্ততা। সারাদিন সারাক্ষণ চলছে নারী পুরুষদের কর্মচাঞ্চল্যতা।
উপজেলার বড়বিল ইউনিয়নের উত্তর পানাপুকুর গ্রাম। এখানে পাল সম্প্রদায়ের প্রায় ৫০ পরিবারের বাস। এখানে ৫০ পরিবারের বাস হলেও বর্তমানে ২৫/৩০ পরিবারের লোকজন বাপ-দাদার আদি পেশাকে আঁকড়ে ধরে আছে আজও। অনেকে পেশা বদল করে অন্য পেশায় চলে গেছে।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, প্রতিটি বাড়ির উঠোন জুড়ে চলছে দিয়া তৈরি ও শুকানোর কাজ। নারী পুরুষ সবাই ব্যস্ত সময় পার করছে। এ সময় কথা হয় মন্টু পালের সাথে। এ বছর তিনি ৩০ হাজার দিয়া তৈরি করেছেন। প্রতি হাজার দিয়া পাইকারি দরে বিক্রি করছেন ৪০০ টাকা। এ জন্য মাটি ক্রয় ও অন্যান্য খরচ মিলে ব্যয় হবে ৪ হাজার টাকা। আর এ কাজে তাকে সহযোগিতা করছে তার স্ত্রী, শাশুড়ি, ছেলে ও ছেলের বউ। পাশের বাড়ির গোকুল পাল তার মা দীপালী রানীকে নিয়ে তখন আগুনে পোড়ানো দিয়া সংরক্ষণ করছে বিক্রির জন্য।

এসব দিয়া বাড়ি থেকে নিয়ে যায় পাইকাররা। পাইকাররা গ্রামে গ্রামে বাড়ি বাড়ি ঘুরে বিক্রি করে দিয়ার। তাছাড়া হাটেও বিক্রি হয়। হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজন পূর্বসূরি মৃত ব্যক্তিদের আত্মার মঙ্গলার্থে ওইদিন রাতে বাড়িতে শিখা প্রজ্বলন করে। এ কারণেই মাটির তৈরি দিয়ারের চাহিদা বেড়ে যায়।

– কুড়িগ্রাম বার্তা নিউজ ডেস্ক –